Type to search

ক্লাসে ঢুকে শিক্ষিকাকে হেনস্তা, বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র বহিষ্কার

জাতীয়

ক্লাসে ঢুকে শিক্ষিকাকে হেনস্তা, বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র বহিষ্কার

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) আইন বিভাগের ক্লাস চলাকালে শিক্ষিকার সঙ্গে অসৌজন্যমূলক আচরণের ঘটনায় আশিক উল্লাহ নামে এক শিক্ষার্থীকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে। বুধবার (৩০ জুন) দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক আসাবুল হক স্বাক্ষরিত এক অফিস আদেশে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে বলা হয়, আইন বিভাগের মাস্টার্সের শিক্ষার্থী আশিক উল্লাহ দীর্ঘদিন ধরে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের সঙ্গে অশোভন আচরণ করে বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বাভাবিক পরিবেশ বিঘ্ন করছে। বিভিন্ন সময়ে সে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের হত্যার হুমকি দিয়েছে। আজ সে আইন বিভাগের ক্লাস রুমে অধ্যাপক আসমা সিদ্দিকাকে হেনস্তা করে। এর পরিপ্রেক্ষিতে এবং শিক্ষার্থীদের দাবির মুখে বিশ্ববিদ্যালয়ের সুষ্ঠু পরিবেশ, শান্তি বজায় রাখার স্বার্থে শৃঙ্খলা কমিটি ও সিন্ডিকেটে রিপোর্ট অনুযায়ী তাকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, বুধবার সকালে চতুর্থ বর্ষের ক্লাস চলাকালে ইমপ্রুভমেন্টের কথা বলে ক্লাসে প্রবেশ করেন মাস্টার্সের শিক্ষার্থী আশিক উল্লাহ। কিন্তু তার কোনও ইমপ্রুভমেন্ট ছিল না। ক্লাসের শেষের দিকে ওই শিক্ষিকাকে বিব্রত করার জন্য অপ্রাসঙ্গিক প্রশ্ন করতে থাকেন। একপর্যায়ে তিনি ক্লাস থেকে বের হতে গেলে ওই ছাত্র দরজা লাগিয়ে তাকে মারার জন্যও ঔদ্ধত্য হন। পরে শিক্ষার্থীরা তাকে ক্লাস রুমে আটকে রেখে শিক্ষিকাকে নিরাপদে উদ্ধার করেন। একইসঙ্গে শিক্ষার্থীরা আশিক উল্লাহকে বিভাগের অফিসে আটকে রাখেন। দুই ঘণ্টা পর প্রক্টরের কাছে তুলে দেওয়া হয়।

পরে বিভাগের শিক্ষার্থীরা তার ছাত্রত্ব বাতিলের দাবিতে প্রশাসন ভবনের সামনে অবস্থান নিয়ে আন্দোলন শুরু করেন। শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মুখে প্রশাসন তাকে সাময়িক বহিষ্কার করে।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *