Type to search

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষকের নিরাপত্তা নেই! -অধ্যাপক শওকত হোসেন

শিক্ষা

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষকের নিরাপত্তা নেই! -অধ্যাপক শওকত হোসেন

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষকের নিরাপত্তা নেই!
-অধ্যাপক শওকত হোসেন

আমরা জাতি হিসেবে এতটাই দুর্ভাগা যে জাতি গড়ার কারিগর শিক্ষক সমাজের নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ। শিক্ষক নির্যাতন-নিপীড়ন, অপমান -অপদস্ত এদেশে নতুন কোন ঘটনা নয়,দীর্ঘদিন ধরে চলে আসছে এ ধরনের দুঃখজনক ঘটনা। সমাজ বিশ্লেষকদের ধারণা, রাজনৈতিক পৃষ্ঠপোষকতা পেয়ে শিক্ষক নির্যাতনের ঘটনা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। কুয়েটে শিক্ষক নিপীড়ন অতঃপর মৃত্যুবরণ, চট্টগ্রামে শিক্ষকে চ্যাং-দোলা করে পুকুরে নিক্ষেপ, যশোরে শিক্ষককে অকথ্য ভাষায় গালি-গালাজ ইত্যকার ঘটনা আমাদের জানা। কী প্রতিকার পেয়েছে শিক্ষক সমাজ?
এবার সাভারের আশুলিয়ায় শিক্ষক উৎপল কুমার বিশ্বাসকে ক্রিকেট খেলার স্ট্যাম্প দিয়ে বেধড়ক পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

অভিযুক্ত খুনি একই বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী আশরাফুল ইসলাম জিতু। জানা গেছে, শনিবার (২৫ জুন) দুপুর ২টার দিকে ওই স্কুলমাঠে শিক্ষককে স্ট্যাম্প দিয়ে বেধড়ক মারপিট করে ওই শিক্ষার্থী। পরে আহত অবস্থায় এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। নিহতের স্বজনরা জানান, তারা জানতে পেরেছেন মেয়েদের ইভটিজিংসহ নানা উচ্ছৃঙ্খলার কারণে শাসন করায় ওই ছাত্র উৎপল কুমারকে হত্যা করেছে। স্বজনরা প্রধানমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রীর কাছে এর উপযুক্ত বিচারের দাবী করেছেন।

নিহত শিক্ষক উৎপল কুমার বিশ্বাস সিরাজগঞ্জ জেলার উল্লাপাড়া থানার এঙ্গেলদানি গ্রামের মৃত অজিত সরকারের ছেলে। তিনি আশুলিয়ার চিত্রশাইল এলাকার হাজী ইউনুস আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজের কলেজ শাখার রাষ্ট্র বিজ্ঞান বিভাগের প্রভাষক এবং শৃঙ্খলা কমিটির সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছিলেন।

আমরা শিক্ষক সমাজ এই ন্যাক্যার হত্যাকাণ্ডের বিচার চাই এবং শিক্ষকদের নিরাপত্তা বিধানে যাবতীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সরকার,প্রশাসন, আইন প্র‍য়োগকারী সংস্থার নিকট জোর দাবী করছি।

লেখক : সহ: অধ্যাপক, কবি ও সাহিত‌্যিক ।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *